ইন্টারনেট
হোম / অর্থনীতি / বিস্তারিত
ADS

বৈশ্বিক মন্দা মোকাবিলায় বাংলাদেশ বাড়তি ঋণ পাবে

10 April 2023, 3:25:00

বিশ্বব্যাংক ও আন্তর্জাতিক অর্থ তহবিলের (আইএমএফ) বসন্তকালীন বৈঠক আজ সোমবার যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটনে শুরু হচ্ছে।

আজ থেকে আগামী ১৬ এপ্রিল পর্যন্ত এ বৈঠক চলবে। বৈশ্বিক মন্দা মোকাবিলার কৌশল সম্পর্কে এ বৈঠকে আলোচনা হবে।

এ অংশ হিসাবে সদস্য দেশগুলোকে বাড়তি ঋণ সহায়তা দেওয়ার ঘোষণাও দেওয়া হতে পারে।

সূত্র জানায়, বৈঠকে অংশগ্রহণের জন্য বাংলাদেশের ছয় সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল ইতোমধ্যে ওয়াশিংটনে পৌঁছেছে। প্রতিনিধি দলে নেতৃত্ব দিচ্ছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর আব্দুর রউফ তালুকদার।

এতে সদস্য হিসাবে রয়েছেন, অর্থসচিব ফাতিমা ইয়াসমিন ও অর্থ বিভাগের অতিরিক্ত সচিব রেহানা পারভীন এবং অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগের দুজন কর্মকর্তা ও বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান অর্থনীতিবিদ হাবিবুর রহমান। এর বাইরে যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে আরও তিনজন যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে। এই তিনজনসহ প্রতিনিধি দলের সদস্য হবে নয়জন।

জানা গেছে, এ ধরনের বৈঠকে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিয়ে থাকেন অর্থমন্ত্রী। কিন্তু অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এবার এতে যোগ দিচ্ছেন না। তিনি গত বছরের অক্টোবরে অনুষ্ঠিত ছয় দিনব্যাপী বিশ্বব্যাংক ও আইএমএফের বার্ষিক সম্মেলনেও যোগ দেননি। ওই বৈঠকেও নেতৃত্বে দিয়েছিলেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর। এবারের বৈঠকে বাংলাদেশের অর্থনীতির সার্বিক চিত্র এবং স্বল্পোন্নত দেশ (এলডিসি) থেকে উত্তরণের প্রাক্কালে বৈশ্বিক সমর্থনের গুরুত্ব তুলে ধরা হবে বলে জানা গেছে।

আইএমএফ ও বিশ্বব্যাংক ইতোমধ্যেই ধারণা দিয়েছে যে, ওই বৈঠক থেকে মন্দার প্রভাব মোকাবিলার কৌশল হিসাবে ৫১ হাজার কোটি ডলার অতিরিক্ত ঋণ দেওয়া দেওয়ার ঘোষণা আসবে। এর মধ্যে বিশ্বব্যাংক দেবে ৫ হাজার কোটি ডলার, আইএমএফ দরিদ্র দেশগুলোকে সুদবিহীন ঋণ দেবে ২ হাজার ৪০০ কোটি ডলার, স্বল্প ও মধ্য আয়ের দেশগুলোকে ঋণ দেওয়া হবে ৪৪ হাজার কোটি ডলার। বাংলাদেশ দুটি সংস্থারই সদস্য হিসাবে ওই ঋণের একটি অংশ পাবে।

জানা গেছে, বিশ্বব্যাংকের সহযোগী প্রতিষ্ঠান দ্য ইন্টারন্যাশনাল ব্যাংক ফর রিকন্সট্রাকশন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট (আইবিআরডি) থেকে ৫ হাজার কোটি ডলারের ঋণ সহায়তা দেওয়া হবে। বাংলাদেশও এর সদস্য বলে এ ঋণের একটি অংশ বাংলাদেশও পাবে। আইএমএফ স্বল্প আয়ের দেশগুলোকে সুদমুক্ত ঋণ দেবে ২ হাজার ৪০০ কোটি ডলার এবং স্বল্প ও মধ্য আয়ের দেশগুলোকে দেবে ৪৪ হাজার কোটি ডলার। ওই বৈঠকে এসব ঋণ দেওয়ার ব্যাপারে একটি কাঠামো তৈরি হবে। আগামী ৫ বছরে এসব ঋণ ছাড় করা হবে। বৈঠকে আইএমএফ ও বিশ্বব্যাংকের সদস্য দেশগুলোর অর্থমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নররা অংশ নেবেন। এবার বাংলাদেশের সঙ্গে বিশ্বব্যাংকের ৫০ বছর পূর্তি হচ্ছে। এ উপলক্ষ্যে বিশ্বব্যাংক ওয়াশিংটনে একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। আগামী ১ মে এ অনুষ্ঠান হতে পারে। এতে অংশগ্রহণের জন্য বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে।

বসন্তকালীন বৈঠককে সামনে রেখে গত বৃহস্পতিবার আইএমএফের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) ক্রিস্টালিনা জর্জিয়েভা বিশ্ব প্রবৃদ্ধি নিয়ে সতর্ক করেছেন। তিনি আশঙ্কা করে বলেছেন, বিশ্বের উন্নত দেশগুলোর অর্থনীতিতে ক্রমাগত মন্দার কারণে এ বছর বৈশ্বিক প্রবৃদ্ধি ৩ শতাংশের নিচে নেমে আসবে। নিম্ন আয়ের প্রায় ১৫ শতাংশ দেশ ইতোমধ্যেই ঋণ সংকটে রয়েছে এবং আরও ৪৫ শতাংশ দেশ এ সংকটের কাছাকাছি রয়েছে। তাদের সমর্থন দেওয়ার জন্য ধনী দেশগুলোকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: