ইন্টারনেট
হোম / অর্থনীতি / বিস্তারিত
ADS

ঈদ ঘিরে মসলার বাজারে ‘আগুন’

15 April 2023, 7:48:37

ঈদুল ফিতরের এখনও বাকি সপ্তাহখানেক সময়। এরই মধ্যে ঈদ ঘিরে বাড়তি চাহিদাকে কেন্দ্র করে বেড়ে গেছে সব ধরণের মসলার দাম।

শনিবার রাজধানীর বিভিন্ন বাজার ঘুরে এমন চিত্র দেখা গেছে।

এতে দেখা যায়, প্রতিকেজি ধনিয়া ১৩০ থেকে ৩০ টাকা বেড়ে ১৬০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এছাড়া মিষ্টি জিরা ৪০০ থেকে ১০০ টাকা বেড়ে ৫০০ টাকা, কালিজিরা ৫০০ থেকে ১০০ টাকা বেড়ে ৬০০ টাকা, লবঙ্গ ১৪০০ থেকে ১০০ টাকা বেড়ে ১৫০০ টাকা, দারুচিনি ৪১০ থেকে ১০০ টাকা বেড়ে ৫২০ টাকা, সাদা গোলমরিচ ৯৫০ থেকে ৫০ টাকা বেড়ে ১০০০ টাকা, তেজপাতা ১৫০ থেকে ২০০ টাকা, কালো গোলমরিচ ৬৫০ থেকে ৫০ টাকা বেড়ে ৭০০ টাকা, মেথি ৩৫০ তেকে ৫০ টাকা বেড়ে ৪০০ টাকা, সরিষা ৩০০ থেকে ৩৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

এছাড়াও শুকনো মরিচ ৩৮০ থেকে ৬০ টাকা বেড়ে ৪৪০ টাকা, আমদানি করা শুকনো মরিচ ৪২০ থেকে ৪০ টাকা বেড়ে ৪৬০ টাকা, দেশি পেঁয়াজ ৩৫ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ৪০ টাকা, আমদানি করা পেঁয়াজ ৪০ থেকে ৫ টাকা বেড়ে ৪৫ টাকা, দেশি রসুন ৭০ থেকে ৩০ টাকা বেড়ে ১০০ টাকা, চায়না রসুন ১২০ থেকে ২০ টাকা বেড় ১৪০ টাকা, দেশি আদা ২২০ থেকে ২০ টাকা বেড়ে ২৪০ টাকা, চায়না আদা ১৩০ থেকে ১৩০ টাকা বেড়ে ২৬০ টাকা, দেশি হলুদ ২২০ থেকে ৭০ টাকা বেড়ে ২৯০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

বিক্রেতারা জানান, দুই ঈদেই সব ধরণের মসলার দাম বেড়ে যায়। খুচরা দোকানিদের বেশি দামে কিনতে হয়। তাই তাদেরও বেশি দামে বিক্রি করতে হয়।

ক্রেতারা জানান, ঈদ এলেই মসলার দাম হুট করে বাড়িয়ে দেওয়া হয়। ঈদকে কেন্দ্র করে বাজারে প্রতিটি মসলা গড়ে প্রতিকেজি ১০ থেকে ১০০ টাকা বেড়েছে।

কাওরান বাজারের পাইকারি মসলা ব্যবসায়ী মনোয়ার হোসেন ঢাকা টাইমসকে বলেন, আমাদের কিছু করার নেই। আমাদের নিজেদেরই মসলা বেশি দামে কিনতে হয়।

একই বাজারের খুচরা মসলা ব্যবসায়ী আমিরুল ইসলাম ঢাকা টাইমসকে বলেন, ঈদে বিশেষ রেসিপিসহ বিভিন্ন ধরনের রান্নার জন্য মসলা লাগবেই। ঈদে পাইকারদের কাছ থেকে আমাদের বেশি দামে কিনতে হয়। ফলে বেশি দামেই বিক্রি করতে হয়।

কাওরান বাজার মসলা কিনতে আসা ক্রেতা মো. ওসমান ঢাকা টাইমসকে বলেন, এমনিতেই বাজারে সবকিছুর দাম লাগামছাড়া। এর মধ্যে মসলার দামও বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: