ADS
ব্রেকিং নিউজঃ
হোম / বিনোদন / বিস্তারিত
ADS

তৃণমূল ছাড়ার ঘোষণা দিলেন অভিনেত্রী দেবশ্রী রায়

১৫ মার্চ ২০২১, ২:৪৫:৩৭

পশ্চিমবঙ্গের ক্ষমতাসীন দল তৃণমূল কংগ্রেস ছাড়ার ঘোষণা দিলেন রায়দিঘির সংসদ সদস্য অভিনেত্রী দেবশ্রী রায়।

তিনি বলেছেন, তৃণমূলের সঙ্গে আর কোনো সম্পর্ক রাখতে চান না তিনি। গত সোমবার তৃণমূলের রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সিকে তার সিদ্ধান্ত জানিয়ে চিঠি পাঠিয়েছেন।

তবে নির্বাচনের আগে হঠাৎ করে কেন দল ত্যাগের সিদ্ধান্ত নিলেন- সে বিষয়ে বিস্তারিত কথা বলেছেন আনন্দবাজারের সঙ্গে।

দেবশ্রী বলেন, তৃণমূলের সঙ্গে যাবতীয় সম্পর্ক ছিন্ন করতে চাই। দল আমাকে ‘ব্যবহার’ করেছে, কিন্তু ‘সম্মান’ দেয়নি।

মমতা ব্যানার্জি সম্পর্কে অনুযোগ করে তিনি বলেন, দলের জন্য কী করিনি! দিদি (মুখ্যমন্ত্রী) আমাকে মঞ্চে নাচতে বলেছেন। নেচেছি। পঞ্চকন্যা অনুষ্ঠানে রানিকে (অভিনেত্রী রানি মুখার্জিকে এনে দিতে বলেছেন। দিয়েছি। কিন্তু দল আমাকে কী দিয়েছে। দু‍বার এমপি হয়েছি। কিন্তু মন্ত্রিত্ব দূরের কথা, দল বা সরকারের কোনো কমিটিতেও জায়গা পাইনি।’

কিন্তু তিনি তো রাজ্য সরকারের ‘অ্যানিম্যাল রিসোর্স ডেভেলপমেন্ট’ বিভাগের কমিটিতে ভাইস চেয়ারম্যান ছিলেন? ‘সেও এক কাহিনি’,বললেন দেবশ্রী।

তার দাবি, আমি নিজে থেকে ওই বিভাগের চেয়ারম্যান হতে চেয়েছিলাম। কারণ আমি পশুপ্রেমী। কাজ করতে চেয়েছিলাম। তখন ওই দফতরের মন্ত্রী ছিলেন স্বপন দেবনাথ। কিন্তু আমায় বলা হল, চেয়ারম্যান করা যাবে না। নন্দ সাহা (নবদ্বীপের তৃণমূল বিধায়ক পুণ্ডরীকাক্ষ সাহা)-কে মন্ত্রিত্ব থেকে সরানো হয়েছে বলে তাকে একটা পদ দিতেই হবে। তাকে চেয়ারম্যান করা হলো। আমায় ভাইস চেয়ারম্যান। তাতেও রাজি হয়েছিলাম। কিন্তু কাজ করতে দেওয়া হয়নি। মাস ছ’য়েক আগে জানতে পারলাম আমাকে সেই পদ থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। সেটাও আমায় না জানিয়ে।

দেবশ্রী বলেন, টানা ১০ বছর মানুষের জন্য কাজ করেছি। সেটা চালিয়ে যাওয়ার ইচ্ছা আছে। তবে বেশি করে অভিনয়ে ফেরার কথা ভাবছি। ওটাই আমার আসল জগৎ। এখনও সম্মানের সঙ্গে ডাক পাই।

বিজেপিতে যোগ দেবেন কিনা-প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, এখনও কিছু ভাবিনি। অভিনয়ে ফেরার ইচ্ছা। কয়েকটা অফারও পেয়েছি। তবে সম্মানের সঙ্গে কেউ ডাকলে ভেবে দেখব।

ADS ADS

প্রতিছবি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Comments: