প্রখ্যাত আইনজীবী এডভোকেট খন্দকার আব্দুল মান্নান আর নেই

ঢাকা জেলার সম্মানিত পাবলিক প্রসিকিউটর, ঢাকা আইনজীবী সমিতির সফল সাবেক সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এবং বৃহত্তর ঢাকা আইনজীবী কল্যাণ সমিতির সম্মানিত সভাপতি জনাব এডভোকেট খন্দকার আব্দুল মান্নান আজ সন্ধ্যা ৭ টা ১০ মিনিটে স্কয়ার হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেছেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রাজিউন।

প্রতিচ্ছবি পরিবারের পক্ষ থেকে গভীর শোক প্রকাশ করে, প্রতিচ্ছবি পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক জনাব, এ্যাডভোকেট এ.এফ.এম রিজাউর রহমান রুমেল, মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং তার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।

উনার রাজনৈতিক বর্নাঢ্য জিবনের কিছু কথা না বললেই নয়, উনার পিতা বাংলাদেশ রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের কর্মকর্তা মরহুম খন্দকার আবদুল কাদের। ১৯৫০ সালে মানিকগঞ্জের নবগ্রামে জন্মগ্রহন করেন।মানিকগঞ্জ ভিক্টোরিয়া হাইস্কুল থেকে ১৯৬৫ সালে এস.এস.সি পাশ করেন। ১৯৬৭ সালে ঢাকার মিরপুরে বাংলা কলেজ থেকে এইচ.এস.সি পাশ করেন। ১৯৭০ সালে একই কলেজ থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জন করেন । ১৯৭৪ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে সেন্ট্রাল ল’ কলেজ থেকে আইনে স্নাতক ডিগ্রি পাশ করেন ।

১ মার্চ ১৯৭৬ সালে বাংলাদেশ বার কাউন্সিল থেকে সনদ নিয়ে ৯ মে ১৯৭৬ সালে ঢাকা আইনজীবী সমিতির সদস্য হন । তিনি ৭ আগষ্ট ১৯৭৮ সালে বাংলাদেশ সুপ্রীমকোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে আইনপেশার অনুমতি প্রাপ্ত হন এবং ১৬ আগষ্ট ১৯৮৭ সালে সুপ্রীমকোর্ট আইনজীবী সমিতির সদস্যভূক্ত হন ।

তিনি ঢাকা আইনজীবী সমিতিতে ১৯৯২-৯৩ সনে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন এবং ২০০৮-২০০৯ সনে সভাপতি নির্বাচিত হন । ২০০৮ সালে বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন, বার কাউন্সিলের সদস্য থাকাকালীন চেয়ারম্যান-২নং ট্রাইবুনাল, চেয়ারম্যান- রিলিফ কমিটি, কো-চেয়ারম্যান- পেশাজীবী সমন্বয় পরিষদ, সদস্য-নির্বাহী কমিটি ও সদস্য এনরোলমেন্ট কমিটির দায়িত্ব পালন করেছেন ।

স্পেশাল পি.পি. হিসাবে ২১ আগষ্ট গ্রেনেড হামলা মামলার দায়িত্ব পালন করছেন । তিনি বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলার আসামীদের ফাঁসির রায় কার্যকরী করাসহ গুরুত্বপূর্ণ রাজনৈতিক মামলা পরিচালনা করেছেন ।

পরিশেষে তিনি একজন আদর্শবান আইনজীবী, কঠোর পরিশ্রমী, বিরামহীনভাবে পেশাগত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি শিক্ষা বিস্তারে, সামাজিক উন্নয়নে, ব্লাস্টের মাধ্যমে গরীব জনসাধারণের জন্য বিনা ফিতে মামলা পরিচালনায় এক অবিস্মরণীয় গুরুদায়িত্ব পালন করে গেছেন ।

আমরা তার বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করি ।