সরকারের আগাম প্রস্তুতিতে আম্ফানে ক্ষয়ক্ষতি কম : সেতুমন্ত্রী

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় সরকারের আগাম প্রস্তুতির জন্য ক্ষয়ক্ষতি কম হয়েছে। সরকার দুর্যোগ পূর্ববর্তী, দুর্যোগকালীন ও দুর্যোগ পরবর্তী প্রস্তুতি যথাযথভাবে সম্পন্ন করেছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনার প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে ঝড়ের আগে বিভিন্ন জেলায় প্রশাসন, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এবং আওয়ামী লীগের কর্মীরা প্রায় ২৪ লাখ মানুষকে আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে এসেছে।

আজ বৃহস্পতিবার সংসদ ভবন এলাকার সরকারি বাসভবন থেকে এক ভিডিওবার্তায় তিনি এ বলেন।

দুর্যোগ ব্যবস্থাপনায় আবারও সরকার দক্ষতার বিরল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে উল্লেখ করে সেতুমন্ত্রী বলেন, যার ফলে আশঙ্কার তুলনায় ক্ষয়ক্ষতি ও প্রাণহানি অনেক কম হয়েছে। দুর্যোগ পরবর্তী ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তা ও বেড়িবাঁধ মেরামতসহ পুনর্বাসনের জন্য এরই মধ্যে নির্দেশনা দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনি বলেন, দুর্যোগ পরবর্তী পুনর্বাসন, পানিবন্দি মানুষের সুরক্ষা এবং ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধ মেরামতে শেখ হাসিনা সরকার ও আওয়ামী লীগ আপনাদের পাশে রয়েছে। মনে রাখবেন আপনারা একা নয়, শেখ হাসিনার মতো দরদি, দক্ষ নেতৃত্ব আপনাদের সাথে আছে সার্বক্ষণিকভাবে।

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রত্যক্ষ তত্ত্বাবধানে ঝড়ের আগে জেলা প্রশাসন, স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা এবং আওয়ামী লীগ কর্মীরা প্রায় ২৪ লাখ মানুষকে আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে গেছেন। দুর্যোগের পর ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তা বেড়িবাঁধ মেরামতসহ সার্বিক পুনর্বাসনে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা দিয়েছেন। পবিত্র লাইলাতুল কদরের রজনীতে মানুষের দোয়া এবং শেখ হাসিনা সরকারের পূর্বপ্রস্তুতি আমাদের এ ঘূর্ণিঝড় হতে উত্তরণে সহায়তা করেছে। এর পাশাপাশি সুন্দরবন সুরক্ষা প্রাচীর হিসেবে কাজ করেছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।