যশোরে রাইস মিল থেকে ৫৫৫ বস্তা সরকারি চাল জব্দ, আটক ১

যশোরের মনিরামপুর উপজেলায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করে ৫৫৫ বস্তা চাল জব্দ করেছেন উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা আহসান উল্লাহ শরিফী।

৪ এপ্রিল শনিবার বিকালে পৌর এলাকার বিজয়রামপুর এলাকার ভাই ভাই রাইচমিলের গুদাম হতে বস্তা ভর্তি চাউল জব্দ করা হয়েছে ও এ ঘটনায় রাইচমিল মালিক কে থানা হেফাজতে নেন মনিরামপুর থানার পুলিশ সদস্যরা।

মনিরামপুর থানার এস আই তপন কুমার সিংহ জানান, দুপুর আনুমানিক ৩ টার কিছু সময় পর সরকারী চাল পাচার হচ্ছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ বিজয়রামপুরের ভাই ভাই রাইচমিলের সামনে পৌছে( ঢাকা মেট্রো-ট-১৬-০০২৭)চাউল লোড চলা কালীন সময়ে একটি ট্রাক আটক করেন। খোলা বাজারে বিক্রয়ের জন্য পাচারের সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা অভিযান পরিচালনা করে সরকারী চাল উদ্ধার করেন।

রাইচ মিলের পরিচালক আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন ৩০ টাকা দরে ৩৭ মেট্রিক টন কাবিখার চাল খাদ্য গুদাম থেকে আমরা তিন জন মিলে কিনেছি। রাইচমিল মালিক সমিতির সভাপতি শহিদুল ইসলাম ও জগদীশ নামে আরো দুই ব্যাবসায়ী রয়েছে। শনিবার খাদ্য গুদামের কর্মকর্তা ফোন দিয়ে গুদাম হতে চাল সরাতে বললে ৫৫৫ বস্তা (১৬মেট্রিক টন) চাল তুলে আমার গোডাউনে আনছিলাম সে সময় পুলিশ চাল আটক করেন।

এ ব্যাপারে মনিরামপুর উপজেলা খাদ্য গুদামের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাংবাদিক পরিচয়ে মুঠো ফোনে কথা বলতে চাইলে সংযোগ কেটে দেন। মনিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম জানান, মিল পরিচালক আব্দুল্লাহ মামুন কে পুলিশ হেফাযতে রাখা হয়েছে ও থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে । মনিরামপুর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা আহসান উল্লাহ শরিফী সংবাদকর্মীদের জানান, পুলিশ বাদী হয়ে চাল উদ্ধার ঘটনায় মামলা করবেন এছাড়াও এ বিষয়ে আমরা আলাদা তদন্ত করবো।