সেই যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে এবার ৩ মামলা

র‍্যাবের হাতে আটক হওয়া যুবলীগের ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভুইয়ার বিরুদ্ধে অস্ত্র, মাদক ও মানি লন্ডারিং আইনে গুলশান থানায় তিনটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার তার বিরুদ্ধে এ তিনটি মামলা দায়ের করা হয়।

এর আগে গতকাল বুধবার ঢাকার ফকিরাপুলে একটি ক্যাসিনোতে অভিযান চালিয়ে জুয়া খেলার সরঞ্জামসহ ১৪২ জনকে আটকের পর খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়াকে তার গুলশানের বাসা থেকে আটক করে র‍্যাব। ফকিরাপুলের ‘ইয়াংমেন ক্লাব’ নামের ওই ক্যাসিনোর প্রেসিডেন্ট খালেদ।

তার বাসায় অভিযানে অংশ নেওয়া একজন কর্মকর্তা জানান, খালেদ মাহমুদের বাসা থেকে একটি অবৈধ পিস্তল, ছয় রাউন্ড গুলি, ২০১৭ সালের পর নবায়ন না করা একটি শটগান উদ্ধার করা হয়েছে। এ ছাড়া, ৫৮৫ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, রাজধানীর ৬০টি স্পটে এমন অবৈধ ক্যাসিনো (জুয়ার আসর) ব্যবসা চলছে। কেন্দ্রীয় ও মহানগর উত্তর-দক্ষিণ যুবলীগের একশ্রেণির নেতা এ ব্যবসায় জড়িত বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।