আইএস নেতা বাগদাদির নতুন অডিও বার্তা প্রকাশ | |

আইএস নেতা বাগদাদির নতুন অডিও বার্তা প্রকাশ

জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস) নেতা আবু বকর আল বাগদাদির নতুন একটি অডিও প্রকাশিত হয়েছে। সেখানে তিনি মালিসহ বিভিন্ন ফ্রন্টে তার দলের যোদ্ধাদের লড়াই চালিয়ে যাওয়ার দাবি করেছেন।

৩০ মিনিটের ওই অডিও বার্তায় তিনি তার অনুসারীদের প্রতি বিভিন্ন কারাগার ও শিবিরে বন্দি থাকা আইএস সদস্য ও নারীদের ছাড়িয়ে আনারও আহ্বান জানান।

সোমবার আইএসের আল ফুরকান নামের একটি মিডিয়া নেটওয়ার্ক ৩০ মিনিটের অডিওটি প্রকাশ করে।

এমন এক সময়ে আইএস নেতার এই অডিও বার্তাটি প্রকাশ পেলো যখন ধরে হয়েছে যে, মধ্যপ্রাচ্যে এই জঙ্গি গোষ্ঠীটি পুরোপুরি পর্যুদস্ত এবং তাদের আর মাথা তুলে দাঁড়াবার ক্ষমতা নেই।

যদিও নতুন ওই অডিও বার্তায় বাগদাদি দাবি করেন, তার অনুসারীরা মালিসহ বিভিন্ন যুদ্ধক্ষেত্রে এখনও প্রতিদিন লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। তবে তিনি এ বিষয়ে বিস্তারিত বলেননি।

এসময় তিনি তার অনুসারীদের ইরাক ও সিরিয়ায় আটক আইএসের সদস্য ও তাদের স্ত্রী সন্তানদের ছাড়িয়ে আনার আহ্বান জানান। তার ভাষায়, ‘খিলাফতের সেনারা কারাগারে বন্দি।’

তিনি আইএস সদস্যদের উদ্দেশ্য করে বলেন, ‘তোমরা তোমাদের ভাই-বোনদের উদ্ধার করতে এবং তাদের কারাগারের দেয়ালগুলি ভেঙে দেওয়ার সর্বাত্মক চেষ্টা কর।’

অডিও বার্তায় কারাগার ও বন্দিশিবিরে আটক থাকা অনুসারীদের ধৈর্য্যধারণের আহ্বান জানান তিনি। সিরিয়ার উত্তরপূর্বাঞ্চলীয় হাসাখেহ প্রদেশের একটি শিবিরে প্রায় ৭৩ হাজার মানুষ আটক রয়েছে। এদের অনেকেই আইএস সদস্য ও তাদের পরিবারের সদস্য। এছাড়া সিরিয়া ও ইরাকের বহু কারাগারে আইএস সদস্যরা আটক রয়েছে।

এর আগে গত পাঁচ মাস আগে তার একটি ভিডিও প্রকাশিত হয়েছিলো। এমন এক সময়ে সেটি প্রকাশ হয়েছিলো যখন ধারণা করা হচ্ছিলো যে, যুদ্ধ করতে গিয়ে গুরুতর আহত হয়েছেন বাগদাদি।

বাগদাদির অডিও প্রকাশের আগে সোমবার, আইএসআইএসের বিরুদ্ধে মার্কিন নেতৃত্বাধীন আন্তর্জাতিক জোটের শীর্ষস্থানীয় ব্রিটিশ কমান্ডার মেজর জেনারেল ক্রিস্টোফার ঘিকা ফোর্সেস নিউজকে বলেছিলেন, আল বাগদাদি এখন আর কোনো হুমকি নন।

‘যদিও তিনি একটি মর্যাদাপূর্ণ মর্যাদা অর্জন করেছেন, কারণ তিনিই সেই ব্যক্তি ছিলেন যিনি ২০১৪ সালে আল নুরি মসজিদের বারান্দায় দাঁড়িয়ে ইরাক ও সিরিয়া জুড়ে খিলাফত প্রতিষ্ঠার ঘোষণা দিয়েছিলেন। আমরা তাকে সত্যিই খুব বেশি গুরুত্বপূর্ণ মনে করছি না।’

এ সময় জেনারেল ক্রিস্টোফার ঘিকা জোর দিয়ে বলেন, ‘আমি এ বিষয়ে নিশ্চিত যে, অচিরেই আমাদের কোনো এক অভিযানে আল বাগদাদি নিহত কিংবা বন্দি হবে।’

সূত্র: দ্য ন্যাশন