লজ্জার বিশ্বরেকর্ড বিরাট-রোহিত-রাহুলের | |

লজ্জার বিশ্বরেকর্ড বিরাট-রোহিত-রাহুলের

হারের জন্য একদমই প্রস্তুত ছিলো না টিম ইন্ডিয়া। সবার চেয়ে বেশি পয়েন্ট নিয়ে বেশ ভালোভাবেই শেষ চারে পৌঁছেছে ভারত। হার ছিলো শুধু এক ম্যাচে। আর নিউজিল্যান্ড পাকিস্তানের সমান পয়েন্ট নিয়ে এক ধরণের খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়েই উঠেছিলো সেমিফাইনালে। আর এমন সমীকরণে ভারতের হার সত্যি অপ্রতাশিত। আর শুধু হার তো নয় এ যেন এক লজ্জার রেকর্ড।

২৪০ রানের টার্গেটে মাঠে নেমেছিল ভারত। কিন্তু অল্প রানে তাড়া করতে নেমে পাঁচ রানের মধ্যে ভারতের টপ অর্ডার ব্য়াটসম্যানরা ফিরে গেলেন। ঘটনাচক্রে রোহিত শর্মা, লোকেশ রাহুল এবং বিরাট কোহলি প্রত্যেকেই আউট হয়ে যান ব্যক্তিগত এক রান করে। পরিসংখ্যান বলছে ওয়ান-ডে ক্রিকেটের ইতিহাসে এর আগে কোনো দলের প্রথম তিন ব্যাটসম্যানই ব্যক্তিগত এক রান করে আউট হয়ে যাননি।

রাহুল আর রোহিত এদিন ব্যাট হেনরির বলে টম ল্যাথামের হাতে ক্য়াচ আউট হয়ে যান। ট্রেন্ট বোল্টের বলে কোহলি এলবিডব্লিউ হয়ে যান। রিভিউ নিয়েও এই যাত্রায় বাঁচেননি তিনি।

গত মঙ্গলবার ম্যাঞ্চেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে দাপট দেখিয়েছিল বৃষ্টি। চলতি বিশ্বকাপের প্রথম সেমিফাইনাল ম্যাচটাই বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হয়ে গিয়েছিল। বুধবার অর্থাৎ আজ সেমির রিজার্ভ-ডে-তে ফের ম্যাচ হয়।

মঙ্গলবার টস জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল নিউজিল্যান্ড। বৃষ্টির জন্য কেন উইলিয়ামসনদের ইনিংস থেমেছিল ৪৬.১ ওভারে। এরপর বৃষ্টিতে আর খেলা শুরু করা যায়নি। মাঠ পরিদর্শন করে এদিনের মতো ম্যাচ স্থগিত রাখার সিদ্ধান্ত নেন ম্যাচ অফিসিয়ালরা। ম্যাচের বাকি অংশ হয় এদিন। খেলা বন্ধ হওয়ার সময়ে ৫ উইকেট হারিয়ে নিউজিল্যান্ড ২১১ রান তুলেছিল। ক্রিজে ছিলেন রস টেলর (৮৫ বলে ৬৭) ও টম ল্যাথাম (৪ বলে ৩)। এদিন কিউয়ি ইনিংসের বাকি ২৩ বল থেকেই খেলা শুরু হয়। নিউজিল্যান্ড এদিন ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ওভারে আট উইকেট হারিয়ে ২৩৯ রান তোলে।