টাইগারদের অভিনন্দন রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর | |

টাইগারদের অভিনন্দন রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীর

ঐতিহাসিক ত্রিদেশীয় সিরিজে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৫ উইকেটে হারিয়ে অপরাজিত চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় টাইগারদের অভিনন্দন জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শুক্রবার (১৭ মে) মধ্যরাতে রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের গণমাধ্যম অনুবিভাগ থেকে পাঠানো এক অভিনন্দন বার্তায় টাইগারদের অভিনন্দন জানান তিনি। রাষ্ট্রপতির সহকারী প্রেস সচিব ইমরানুল হাসান গণমাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অভিনন্দন বার্তায় রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘এই জয় বাংলাদেশের ক্রিকেট দলের আত্মবিশ্বাস আরও বাড়িয়ে দেবে এবং আসন্ন ক্রিকেট বিশ্বকাপে ভালো ফলাফল অর্জনে ইতিবাচক ভূমিকা রাখবে।’

অপরদিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের প্রেস উইং থেকে পাঠানো বার্তায় বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে অভিনন্দন জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনিও সিরিজ জয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেট দলকে অভিনন্দন জানিয়েছেন।

শুক্রবার রাতে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে উইন্ডিজদের হারিয়ে প্রথম শিরোপা জেতে বাংলাদেশ। এদিন ক্যারিবীয়ানদের ৫ উইকেটে হারিয়ে দেন লাল-সবুজের জার্সিধারীরা।

ডাবলিনের মালাহাইট ক্রিকেট ক্লাব গ্রাউন্ডে সৌম্য সরকার ও মোসাদ্দেক হোসেনের সৈকতের অনবদ্য ব্যাটিংয়ে জয় পায় মাশরাফিরা। বৃষ্টির বাধায় পণ্ড হয়ে যাওয়া ৫০ ওভারের ম্যাচটি ডার্ক ওয়ার্থ লুইস (ডিএল) পদ্ধতিতে ২৪ ওভারে খেলতে হয়েছে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজকে।

টস জিতে উইন্জিদের প্রথমে ব্যাটিংয়ে পাঠান টাইগার অধিনায়ক মাশরাফী। বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১০টায় শুরু হয় ম্যাচটি। বৃষ্টির আগ পর্যন্ত ২০ ওভার এক বলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ কোনো উইকেট না হারিয়ে ১৩১ রান সংগ্রহ নিয়ে মাঠে নামে।

পরে তিন ওভার পাঁচ বলে ক্যারিবীয়রা যোগ করেন ২১ রান। উইন্ডিজদের দলীয় স্কোর ১৫২ রান হলেও ডিএল মেথডে টার্গেট দাঁড়ায় ২১০ রানের। ক্যারিবীয়দের হয়ে সর্বোচ্চ ৭৪ রান করেন শাই হোপ। আম্ব্রিস ৬৯ ও ব্রাভো তিন রানে অপরাজিত থাকেন। টাইগারদের হয়ে মেহেদী মিরাজ নেন ১ টি উইকেট।

এর জবাবে খেলতে নেমে সৌম্য সরকারের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে দুর্দান্ত শুরু করেছে বাংলাদেশ। মাত্র ২৭ বলে অর্ধশতক করেন তিনি। তবে আজ ওপেনার তামিমকে নিজ ফর্মে দেখা যায়নি। ব্যর্থ হয়েছেন সাব্বির রহমানও। তামিম ১৩ বলে ১৮ ও সাব্বির ০ রানে আউট হন। মুশফিক ও মিথুন আউটি হয়ে ফিরে গেলে মাঠে নামেন মোসাদ্দেক হোসের সৈকত।