চবিতে খালেদা জিয়া হলের নাম তুলে ফেলল ছাত্রলীগ | |

চবিতে খালেদা জিয়া হলের নাম তুলে ফেলল ছাত্রলীগ

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে (চবি) বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার নামে থাকা হলের নামফলক পাল্টে দিয়েছে ছাত্রলীগ। হলের নাম পাল্টাতে প্রক্টর বরাবর আবেদন করে তারা নিজেরা ‘বীর প্রতীক তারামন বিবি হল’ এর নামফলক ঝুলিয়ে দেয়।

মঙ্গলবার বিকালে সাড়ে তিনটার দিকে নতুন নাম ঘোষণা দিয়ে ‘দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া হল’ এর নামফলক অপসারণ করে হলনির্দেশক ও উদ্বোধনী ফলক কালো কালি দিয়ে মুছে ফেলা হয়। পরে ঘোষিত নতুন নামে ওই হলের নামকরণ করতে প্রক্টর বরাবর আবেদন জানায় ছাত্র সংগঠনটি।

বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সহ- সভাপতি মনসুর আলম, আবদুল মালেক, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবু তোরাব পরশ, উপ-দপ্তর সম্পাদক মিজানুর রহমান বিপুল, প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয়, আমির সোহেল, মুজিবুর রহমান, সাইকুল ইসলাম,ইব্রাহিম খলিল, রাজিব আকিব প্রমুখের নেতৃত্বে এই নামফলক পাল্টানো হয়।

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক উপদপ্তর সম্পাদক মিজানুর রহমান বিপুল ঢাকা টাইমসকে বলেন, ‘চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মত সর্বোচ্চ বিদ্যাপীঠে কোনো চিহ্নিত ও এতিমের অর্থ আত্মসাৎ মামলায় সাজাপ্রাপ্ত আসামি, অশিক্ষিত জঙ্গিমাতা খালেদা জিয়ার নামে কোন স্থাপনা থাকতে পারে না। আমরা আ জ ম নাছির ভাইয়ের নির্দেশনায় খালেদার নাম ফলক মুছে দেই এবং বীর প্রতীক তারামন বিবির নামে হল করার প্রস্তাব রেখেছি।’

প্রক্টর আলী আজগর চৌধুরী জানান তিনি এই ঘটনাটি শুনেছেন। তবে হলের নাম পাল্টাতে কোনো আবেদন পাননি।