যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে দোষী সাব্যস্ত বাংলাদেশের আকায়েদ | |

যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে দোষী সাব্যস্ত বাংলাদেশের আকায়েদ

নিউইয়র্কের বাস টার্মিনালে আত্মঘাতী বিস্ফোরণের চেষ্টার সময় আহতাবস্থায় গ্রেফতার হয়েছিলেন বাংলাদেশি যুবক আকায়েদ উল্লাহ। তাকে সন্ত্রাসবাদের ছয় অভিযোগে দোষী সাব্যস্ত করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের আদালত। খবর রয়টার্স।

এক সপ্তাহ শুনানির পর মঙ্গলবার ম্যানহাটনের ফেডারেল আদালতের গ্র্যান্ড জুরি আকায়েদকে দোষী সাব্যস্ত করেন। যুক্তরাষ্ট্রের আইন অনুযায়ী, আকায়েদের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হতে পারে।

১১ ডিসেম্বর নিউইয়র্কের ম্যানহাটনে একটি ব্যস্ত এলাকায় বোমা বিস্ফোরণ ও হামলার চেষ্টার অভিযোগে গ্রেফতার হন আকায়েদ। ওই হামলায় আকায়েদসহ চারজন আহত হন।

তাকে গ্রেফতারের পর নিউইয়র্ক পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়, ইসলামিক স্টেটের (আইএস) মাধ্যমে অনুপ্রাণিত হয়ে তিনি হামলা চালানোর চেষ্টা করেন বলে জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছেন।

চলতি বছর ১০ জানুয়ারি ম্যানহাটনের ফেডারেল কোর্টের গ্র্যান্ড জুরি আকায়েদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর পক্ষে মত দেন।

আসামিপক্ষের আইনজীবী জুলিয়া গাটো শুনানিতে দাবি করেন, আকায়েদ কখনই আইএস সদস্য ছিল না। হতাশাগ্রস্ত ওই তরুণ বিস্ফোরণ ঘটিয়েছিলেন আত্মহত্যা করার জন্য।

অন্যদিকে প্রসিকিউটররা ওই দাবি প্রত্যাখ্যান করে আদালতে বলেন, আকায়েদ তার শরীরে এমনভাবে বোমা বেঁধেছিলেন, যাতে অন্যদেরও ক্ষতি হয়। আর তিনি যে ইন্টারনেটে আইএসের কর্মকাণ্ডের খোঁজখবর রাখতেন, সেই প্রমাণ তার কম্পিউটারেই পাওয়া গেছে।

শুনানি শেষে মঙ্গলবার ছয় অভিযোগেই আকায়েদকে দোষী সাব্যস্ত করেন গ্র্যান্ড জুরি। তবে তার সাজা কবে ঘোষণা করা হবে, সেই তারিখ আদালত এখনও জানাননি।