অতিরিক্ত শাসন | |

অতিরিক্ত শাসন

অতিরিক্ত শাসন অথবা ঘরে আটকে রাখলে সন্তানের মানসিক বিকাশ ক্ষতিগ্রস্ত হয়।সন্তান কে যেকোন কিছুতে অতিরিক্ত চাপাচাপি করলে তাদের মানসিক সমস্যায় ভুগতে হয়।নিজের সন্তানের সাথে অবশ্যই ভালো ব্যবহার করতে হবে।কখনো অন্যজনের কথা,বা অন্যের সাথে তুলনা করবেন না।চেষ্টা করবেন সন্তানের কথা শুনতে, সে যে গুরুত্বপূর্ণ সেটা তাকে অনুভব করানোর চেষ্টা করবেন।এমন কোন কথা কিংবা এমন কোন ব্যবহার করবেন নাহ যাতে সন্তানের মন ভেংগে যাই, এবং তারা ভুল কোন সিদ্ধান্ত নেই।

সন্তান ভুল করবেই, ভুল করাই স্বাভাবিক তার ভুলগুলো তাকে ধরিয়ে দেবেন যুক্তি দিয়ে, বকা ঝকা দিয়ে নয়। সন্তানের প্রাথমিক মানসিক বিকাশটা পুরোপুরি তার পরিবার এবং পরিবেশের উপর নির্ভরশীল। আমি এমন অনেক মানসিক রোগী দেখেছি যাদের অসুস্থতার জন্য তাদের মা বাবা ও পরিবার লোকজন কিংবা আত্মীয় স্বজনরাই দায়ী এবং এখন উনারা ঠিকই আফসোস করেন।

আসল কথা হলো ১ম আপনার সন্তান কে আপনার বুঝতে হবে ভালো করে,অন্যরা আপনার সন্তান নিয়ে কি বলছে,সে এমন কেন, এটা করে কেন ওটা করে কেন এসব কথায় কান না দিয়ে, সন্তান কি বলতে চাই,কি করতে চাই তা দেখতে হবে এবং বুঝতে হবে,তার সাথে বন্দুসুলভ আচরণ করতে হবে এবং তাকে ভালোমন্দ বুঝাইতে হবে।

তাই এখনই একটু সচেতন হোন সন্তানের ব্যাপারে। ভালো কাজে স্বাধীনতা দিন এবং মন্দ কাজটা কেনো মন্দ সেটা যুক্তি দিয়ে বুঝিয়ে বলুন। দেখবেন সন্তান ঠিকই সেটা বুঝার চেষ্টা করবে এবং ভালোর দিকেই যাবে। সন্তানের বিকাশের জন্যে পরিবারই যথেষ্ট।

লেখকঃ ফারজানা আকতার (অনি)