অভিযোগ পেলে মন্ত্রী-এমপিদেরও জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সরকারের ধারাবাহিক দুই মেয়াদে দেশে দুর্নীতি অনেকাংশে হ্রাস পেয়েছে। সরকারের মন্ত্রী-এমপিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ পাওয়া গেলে তাদেরকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে বলে জানান তিনি।

বুধবার (৩১ জানুয়ারি) কাকরাইলে আন্তর্জাতিক সুপ্রিম অডিট ইন্সটিটিউটের সম্প্রসারিত ভবনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী এ কথা বলেন। প্রধানমন্ত্রী বলেন, সুশাসন নিশ্চিত ও দুর্নীতি হ্রাসের লক্ষ্যে আধুনিক অডিট ব্যবস্থার ওপর গুরুত্ব দিতে হবে।

দুর্নীতি দমন কমিশন এখন স্বাধীনভাবে কাজ করতে পারে উল্লেখ করে তিনি বলেন, সরকারের এমপি-মন্ত্রীর বিরুদ্ধে কোনো অভিযোগ পাওয়া গেলে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। বিএনপির সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, অবৈধভাবে ক্ষমতা দখলকারীরা কখনওই দেশের উন্নতি করতে পারে না। কারণ তারা ক্ষমতা ধরে রাখতেই ব্যস্ত থাকে।

শেখ হাসিনা বলেন, এসডিজির লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে অামরা কাজ করছি। অনেক ক্ষেত্রে অামরা বিশ্বের উন্নত দেশ থেকে অগ্রগামী। দেশে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্য এখন ৮ লাখ। ই-টেন্ডারের কারণে এখন অার টেন্ডারের বাক্স ছিনতাই হয় না।

জনগণের অর্থ সাশ্রয় ও দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে অডিট অ্যান্ড অ্যাকাউন্টস ডিপার্টমেন্টকে আরও দক্ষতা ও পেশাদারিত্বের সঙ্গে কাজ করার আহ্বান জানান প্রধানমন্ত্রী।

রাজধানীর কাকরাইলে ৭৭\৭ অডিট ভবনে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অর্থ প্রতিমন্ত্রী অাবদুল মান্নান এবং অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন অডিটর জেনারেল মাসুদ আহমেদ।