নিরাপত্তার চাদরে রাজধানী | |

নিরাপত্তার চাদরে রাজধানী

প্রতিবছর জাতীয় শোক দিবসকে (১৫ আগস্ট) ঘিরে বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘাতক, স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি ও জঙ্গিগোষ্ঠী নাশকতা ও হামলা চালানোর চেষ্টা করে থাকে।

গেল বছর জাতীয় শোক দিবসেও একটি ভয়াবহ বোমা হামলার পরিকল্পনা করেছিল জঙ্গি সংগঠনের বেশ কর্মীরা। রাজধানীর পান্থপথে হোটেল ওলিও ইন্টারন্যাশনালে অবস্থান করে শোক দিবসে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে আয়োজিত মিছিল-সমাবেশে আত্মঘাতী হামলার পরিকল্পনা ছিল তাদের। কিন্তু সফল হতে পারেনি তারা। তবে সে সময় তাৎক্ষণিক পুলিশের অভিযানের সময় বিস্ফোরণে একজন জঙ্গি নিহত হয়।

গোয়েন্দা সূত্র জানিয়েছে, এবারেও স্বাধীনতাবিরোধী অপশক্তি এবং জঙ্গিদের বিরাট একটা একাংশ ১৫ আগস্টের শোক দিবসে নাশকতা করার জন্য তৎপর রয়েছে। স্বাধীনতাবিরোধীরা যেন কোন ধরনের অপকর্ম ও বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি না করতে পারে, সেই কারণে শনিবার (১১ আগস্ট) থেকে ঢাকা শহরকে নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হবে। ১৫ আগস্টের সকল কর্মসূচী যেন নির্বিঘ্নে হয় সেই ব্যবস্থা করবে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী।

বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা হিসেবে ধানমন্ডি ৩২ নম্বরের আশেপাশে যে আবাসিক হোটেল আছে সেগুলোতে তল্লাশি চালানো হবে। ধানমন্ডি এলাকায় নিরাপত্তা ব্যবস্থা ব্যাপক জোরদার করা হবে। বিভিন্ন সন্দেহজনক স্থানে তল্লাশি চালানো হবে। আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর নজরদারি বাড়ানো হবে ধানমন্ডি এলাকায়।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সদস্যরা আশা প্রকাশ করছে এবারে নির্বিঘ্নে কোনো বিশৃঙ্খলা ছাড়াই ১৫ আগস্ট শোক দিবস পালন করা যাবে। ১৫ আগস্ট ঘিরে কোন অনভিপ্রেত ঘটনা যেন না ঘটে সে জন্য আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সদা তৎপর রয়েছে।