চলতি বছর বিদেশে যাবে ১২ লাখ কর্মী | |

চলতি বছর বিদেশে যাবে ১২ লাখ কর্মী

প্রতিচ্ছবি রিপোর্টঃ ২০১৮ সালে বাংলাদেশ থেকে বিভিন্ন দেশে কাজের উদ্দেশ্যে ১২ লাখ কর্মী পাঠানোর পরিকল্পনার কথা জানিয়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি।

বুধবার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ে ‘সাফল্যগাথা-২০১৭’ এবং নতুন বছরের কর্মপরিকল্পনা নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রী এ তথ্য জানান।

মন্ত্রী বলেন, ‘২০১৮ সালে আমরা ১২ লাখ কর্মী পাঠানোর পরিকল্পনা হাতে নিয়েছি। তবে এক্ষেত্রে ২০১৭ সালের ধারা অব্যাহত রাখাসহ গুরুত্ব দেয়া হবে দক্ষ ও প্রশিক্ষিত কর্মী পাঠানোর ওপর। কর্মীর সংখ্যার চেয়ে গুণগত মানের ওপর গুরুত্ব দেয়া আমাদের মূল লক্ষ্য।’

নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেন, ‘আমরা ক্রমান্বয়ে অদক্ষ কর্মী পাঠানো কমিয়ে আধা দক্ষ ও দক্ষ কর্মী পাঠানোর ওপর গুরুত্ব দিচ্ছি। কর্মী পাঠানোর ক্ষেত্রে সেবা প্রদানে আরও বিকেন্দ্রীকরণ ও ডিজিটালাইজেশন ব্যবস্থাপনার ওপরও গুরুত্ব দিচ্ছি।’

এ সময় মন্ত্রী বিদেশ ফেরত কর্মীদের ইউনিয়নভিত্তিক ডাটাবেজ প্রণয়নের পরিকল্পনার কথাও বলেন।

বিভিন্ন সমস্যায় পড়ে প্রতি বছর বিদেশ থেকে কী পরিমাণ কর্মী দেশে ফেরত আসছে এই তথ্য মন্ত্রণালয়ের কাছে আছে কি না জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘যারা সমস্যায় পড়ে দেশে ফিরে আসেন তারা আমাদের সঙ্গে কোনো যোগাযোগ রাখে না। তারা তাদের মতো করে নিজ উদ্যোগে দেশে ফিরে আসে।’

বিদেশ থেকে অবৈধ পথে আসা রেমিটেন্স বন্ধ করতে প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয় কোনো উদ্যোগ নিয়েছে কি না, জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘এটার দায়িত্ব অর্থমন্ত্রণালয়ের, আমাদের না। এটা নিয়ে আমাদের সমন্বিত উদ্যোগ এখনো নেয়া হয়নি। তবে আমরা সমন্বিত উদ্যোগ নেয়ার চেষ্টা করছি।’

২০২২ সালে বিশ্বকাপ ফুটবল আয়োজন করবে কাতার। সেখানে বিভিন্ন কাজের জন্য দেশের বাইরে থেকে কর্মী নেবে দেশটি। সেখানে বাংলাদেশ কোনো পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমাদের এখন পর্যন্ত এ বিষয়ে কোনো পরিকল্পনা নেই। তবে আসন্ন অলিম্পিকে আমাদের কর্মী নেয়ার ডিমান্ড এলে আমরা সে ক্ষেত্রে বাড়তি কর্মী পাঠাব।’

২০১৭ সালে বাংলাদেশ থেকে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে ১০ লাখের বেশি শ্রমিক বৈধ পথে কাজ করতে গেছেন। এটা জনশক্তি রপ্তানিতে কোনো একটি বছরের সর্বোচ্চ।

এই সংখ্যা আগের বছরের তুলনায় প্রায় ৩৩ শতাংশ বেশি। আর কর্মীদের মধ্যে তিনটি দেশেই গেছে প্রায় সাড়ে আট লাখ।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের হিসাবে সদ্য বিদায় নেয়া বছরের ১ জানুয়ারি থেকে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত ১০ লাখ আট হাজার ৫২৫ জন কর্মী বিদেশে গেছেন।

এর আগে ২০০৮ সালে আট লাখ ৭৫ হাজার ৫৫ জন কর্মী বিদেশ গিয়েছিলেন। এটাই এতদিন এক বছরে সর্বোচ্চ জনশক্তি রপ্তানির রেকর্ড ছিল।

বর্মানে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে এক কোটি ১১ লাখ বাংলাদেশি দেশের বাইরে রয়েছে।